আনোয়ারায় বেসরকারি ব্যাংকসহ ২০ দোকানে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা

নিজস্ব প্রতিনিধি
সারা আনোয়ারা।

চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলায় আগুন লেগে একটি বেসরকারি এবি ব্যাংকের শাখাসহ ২০টি দোকান পুড়ে তছনছ হয়ে গেছে।এতে প্রায় ২ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি ব্যাংক কর্মকর্তা ও ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীদের।রোববার (৬ নভেম্বর) দিবাগত রাত ১২টার দিকে উপজেলার চাতরী চৌমুহনী বাজার এলাকায় এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় লোকজন ও ফায়ার সার্ভিস সুত্রে জানায়,রাত ১২টার দিকে আনোয়ারা চাতরী চৌমুহনী বাজারের ভোজনবাড়ি রেস্টুরেন্টের ভবনের পাশে একটি ঝাল বিতান দোকানে আগুন লাগে।এরপর তা আশপাশের দোকান এবং এবি ব্যাংকের শাখায় ছড়িয়ে পড়ে।এ সময় আগুনের তীব্রতা বেড়ে গেলে লোকজন তা নেভাতে হিমশিম খায়।পরে আনোয়ারা ফায়ার সার্ভিস,লামার বাজার,বাঁশখালী, চন্দনাইশ ও সিইউএফএল ফায়ার স্টেশনের কর্মীরা আগুন নেভানোর কাজ শুরু করলে রাত চারটার দিকে তা পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণে আসে।এ সময় এবি ব্যাংকের প্রহরীসহ আটকে পড়া দুজনকে উদ্ধার করেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা।

ক্ষতিগ্রস্ত ভোজন বাড়ি রেস্টুরেন্টের মালিক জানান, ঠিক রাত ১২টায় দোকান বন্ধ করে চলে যাচ্ছিলাম। এসময় নিচ থেকে খবর আসে ঝাল বিতানের ভেতরে আগুনে পুড়ে যাচ্ছে। দ্রুত আমরা বের হয়ে আসি এবং আগুন নিয়ন্ত্রণে চেষ্টা করে।ঝাল বিতানের ভেতরে তালা বদ্ধ থাকায় আগুন ছড়িয়ে পড়ে পুরো ভোজন বাড়ি রেস্টুরেন্টসহ পুরো ভবনে। এতে করে প্রায় ৭০ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

এদিকে আগুনে বেসরকারি এবি ব্যাংকের শাখা পুড়ে গেছে।তবে ব্যাংকের নিরাপত্তা ভল্ট শতভাগ সুরক্ষিত আছে বলে জানিয়েছেন ব্যাংক কর্মকর্তারা।গ্রাহকের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট জরুরি সব ডকুমেন্টস ভল্টে থাকায় তাও রক্ষা পেয়েছে।তাছাড়া এবি ব্যাংক শতভাগ অনলাইন ব্যাংকিং হওয়াতে ডাটাগুলো সেন্ট্রাল সার্ভারে সংরক্ষিত আছে। যে কারণে দ্রুততার সাথে সব ডাটা সংরক্ষণ করা সম্ভব হবে বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা।তাতেও আগুনে পুড়ে আনুমানিক ৫০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলেও জানান কর্মকর্তারা।

এ বিষয়ে ফায়ার সার্ভিসের চট্টগ্রাম জোনের উপ সহকারি পরিচালক মোহাম্মদ আবদুল্লাহ জানান, আগুনের খবর পেয়ে আনোয়ারা, চন্দনাইশ, বাঁশখালী ও লামার বাজার ফায়ার সার্ভিসের ৪টি ইউনিট দেড় ঘন্টা চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণ আনে। এসময় ভবনে আটকে থাকা সিকিউরিটি গার্ডকে উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা।আগুণের সূত্রপাত ও ক্ষয়ক্ষতির বিষয়ে তদন্ত করে জানা যাবে।

Related posts