কর্ণফুলী সবুজ জোন হিসেবে চিহ্নিত

নিজস্ব প্রতিনিধি – চট্টগ্রাম কর্ণফুলী উপজেলা সবুজ জোন হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে।
বিষয়টি নিশ্চিত করছেন কর্ণফুলী উপজেলা নির্বাহী অফিসার(ইউএনও)মোহাম্মদ নোমান হোসেন।
কর্ণফুলী উপজেলা বড়উঠান ইউনিয়ন,শিকলবাহা ইউনিয়ন,জুলধা ইউনিয়ন,চর লক্ষ্যা ইউনিয়ন,চর পাথরঘাটা ইউনিয়ন।এই পাঁচটি ইউনিয়ন মিলে ২০১৬সালের ৯মে কর্ণফুলী উপজেলা গঠিত হয়।এই উপজেলাটি বাংলাদেশের ৪৯০নং উপজেলা।
২০১১সালের আদম শুমারী অনুযায়ী এই উপজেলায় মোট জনসংখ্যা ১,৬২,১১০জন।এর মধ্যে পুরুষ ৮৩,৭১৭জন এবং মহিলা ৭৮,৩৯৩জন।
এই উপজেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এই ২৮জন।এরই মধ্যে দুইজন মারা গেছেন তবে দুইজনের মধ্যে একজন ফলাফল আসার আগেও মৃত্যু বরণ করেছেন।
ইতিমধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন দুইজন অনেকই সুস্থ হওয়ার পথে বলে জানিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ইউএনও মোহাম্মদ নোমান হোসেন।
তিনি আরও বলেন নতুন উপজেলা হওয়ায় কর্ণফুলী উপজেলায় কোন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নেই এবং এই কারনে উপজেলার সম্পূর্ণ স্বাস্থ্যসেবা পাশ্ববর্তী পটিয়া উপজেলা হতে পরিচালনা করা হচ্ছে। মূলত পটিয়া উপজেলার ১৭ টি ইউনিয়ন সহ কর্ণফুলী উপজেলার ৫ টি ইউনিয়ন মোট ২২ টি ইউনিয়নের স্বাস্থ্য সেবা পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা দেখে থাকেন।
বর্তমান করোনা ভাইরাস জনিত স্বাস্থ্য সেবার পুরো বিষয়টি পটিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হতে দেখা হচ্ছে। পটিয়া উপজেলা হতে করোনা সংক্রান্ত নিয়মিত আপডেট (২২ টি ইউনিয়ন) দেওয়া হচ্ছে। ইতোমধ্যে সিভিল সার্জন, চট্টগ্রাম মহোদয় সহ পটিয়া স্বাস্থ্য কর্মকর্তার সাথে বিষয়টি নিয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান মহোদয় এবং আমি কথা বলেছি এবং আশা করছি খুব দ্রুত কর্ণফুলী উপজেলার ৫ টি ইউনিয়ন এর করোনা তথ্য আলাদাভাবে প্রকাশ করা হবে।

Related posts